ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা

অনলাইনডেক্স ০২:৫৯, ৭ জুন ২০২০

করোনাভাইরাসের সংকটের মধ্যে ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে আওয়ামী লীগ।
রোববার (৭ জুন) রাজধানীর ধানমণ্ডি ৩২ নম্বরে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।
আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্বে শ্রদ্ধা নিবেদনে দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, হাছান মাহমুদ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমেদ হোসেন, বিএম মোজাম্মেল, মির্জা আজম, শাখাওয়াত হোসেন শফিক, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবদুস সুবহান গোলাপ, শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক সামসুন্নাহার চাঁপা, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক রোকেয়া সুলতানা, মহিলা ও শিশু বিষয়ক সম্পাদক মেহের আফরোজ চুমকী, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক মৃনাল কান্তি, ত্রাণ ও সমাজ সম্পাদক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, বন ও পরিবেশ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, উপ প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান, কেন্দ্রীয় সদস্য মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, আ খ ম জাহাঙ্গির, শাহাব উদ্দিন ফরাজী উপস্থিত ছিলেন।
পরে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন সহযোগী সংগঠন- মহানগর আওয়ামী লীগ উত্তর, ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, শ্রমিক লীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, যুব মহিলা আওয়ামী লীগ এবং স্বাচিপের পক্ষ থেকে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়।
শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ সাংবাদিকদের বলেন, আজ ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস, ১৯৬৬ সালের এ দিনে হাজার বছরের সর্বশ্রেষ্ট বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান ঐতিহাসিক ছয় দফা প্রস্তাব পেশ করেছিলেন। প্রকৃতপক্ষে স্বাধীনতার পক্ষে বঙ্গবন্ধু ছয় দফা ঘোষণা করেছিল। এটির পক্ষে বাংলাদেশের মানুষ অর্থাৎ তৎকালীন পূর্ব বাংলার মানুষ অকুণ্ঠ সমর্থন দিয়েছিল। ছয় দফার ভিক্তিতে ১৯৭০ সালের নির্বাচন হয়েছিল এবং এ দেশের মানুষ নিরঙ্কুশ সমর্থন জানিয়েছিল। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান পাকিস্তানি জাতীয় পরিষদে সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করেছিল।

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ