সর্বশেষ :

তুরস্ককে প্রতিহত করতে কুর্দিদের সঙ্গে সিরিয়া সরকারের চুক্তি

অনলাইন ডেস্ক: ০৩:৩৪, ১৪ অক্টোবর ২০১৯

বুধবার সিরিয়ায় তুরস্কের অভিযান শুরু করার পর থেকে অনেক বেসামরিক মানুষ মারা গেছে [ছবি: সংগৃহীত]
সিরিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চল সীমান্তে কুর্দিদের বিরুদ্ধে তুরস্কের চলমান আগ্রাসন প্রতিহত করতে কুর্দিদের সঙ্গে একটি চুক্তি করেছে সিরিয়ার সরকার। চুক্তি অনুযায়ী ইতোমধ্যে সেখানে সেনাবাহিনী পাঠিয়েছে দেশটির সরকার।

সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম এর আগে জানায় যে, উত্তরাঞ্চলে সরকারি বাহিনী নিয়োগ করা হয়েছে। গত সপ্তাহে শুরু হওয়া তুর্কি অভিযানের মূল উদ্দেশ্য কুর্দি বাহিনীগুলোকে সীমান্ত এলাকা থেকে উৎখাত করা।

কুর্দি নেতৃত্বাধীন সিরিয়ান ডেমোক্র্যাটিক ফোর্সেস বা এসডিএফ-এর নিয়ন্ত্রণে থাকা এলাকাগুলো গত সপ্তাহে তীব্র বোমা হামলার শিকার হয়েছে। সীমান্তবর্তী দুটি শহরে তুরস্কের বাহিনী শক্ত অবস্থান নিতে শুরু করেছে। সীমান্তের দুই প্রান্তেই বেসামরিক নাগরিকসহ অনেক যোদ্ধা নিহত হয়েছে।

তুরস্ক এসডিএফের কুর্দি সেনাদের সন্ত্রাসী হিসেবে চিহ্নিত করে। তুরস্কের বক্তব্য, তারা সিরিয়ার ভেতরে অন্তত ৩০ কিলোমিটার পর্যন্ত কুর্দিদের হটিয়ে ‘নিরাপদ অঞ্চল’ তৈরি করতে চায়। তুরস্কের ভেতরে থাকা ৩০ লাখের বেশি সিরিয় শরণার্থীকে ঐ অঞ্চলে পুনর্বাসিত করার পরিকল্পনার কথাও বলেছে তুর্কি কর্তৃপক্ষ।

আরো পড়ুন: হাগিবিসে বিধ্বস্ত জাপান, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩৫

তবে ওই অঞ্চলে থাকা ইসলামিক স্টেট যোদ্ধাদের পরিবারের তুরস্কের এই হামলার সুযোগ নিচ্ছে বলে কুর্দিরা জানিয়েছে। রবিবার কুর্দি কর্মকর্তারা জানান, বিদেশি ইসলামিক স্টেট যোদ্ধাদের পরিবারের প্রায় আটশো সদস্য যুদ্ধের সুযোগ নিয়ে উত্তরাঞ্চলের আইন ইসা ক্যাম্প থেকে পালিয়ে গেছেন।

এদিকে তুরস্কের আগ্রাসন এবং ঐ এলাকা থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সেনা প্রত্যাহার করে নেয়ার ঘটনায় আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। কারণ সিরিয়ায় ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে যুদ্ধে পশ্চিমা জোটের প্রধান সহযোগীই ছিল এসডিএফ।-বিবিসি

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ