সর্বশেষ :

সুস্থ্য হয়ে উঠছেন এটিএম শামসুজ্জামান, কেবিনে হস্তান্তর

বিনোদন বক্স ১১:৩৬, ২১ মে ২০১৯

নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র (আইসিইউ) থেকে বের করা হয়েছে অসুস্থ অভিনেতা এটিএম শামসুজ্জামানকে। রাজধানীর গেন্ডারিয়ায় অবস্থিত আজগর আলী হাসপাতালে টানা ২৫ দিন আইসিইউতে থাকার পর সোমবার বিকাল পাঁচটায় অভিনেতাকে কেবিনে স্থানান্তর করা হয়। তার শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে অনেক ভালো বলে জানিয়েছেন হাসপাতালটির চিকিৎসক ক্রিটিক্যাল কেয়ার বিশেষজ্ঞ মতিউল ইসলাম।
ডা. মতিউল ইসলাম বলেন, ‘একজন সংকটাপন্ন রোগীর ইতিবাচক খবর জানাতে পেরে ভালো লাগছে। সোমবার বিকাল পাঁচটায় এটিএম শামসুজ্জামানকে আইসিইউ থেকে কেবিনে পাঠানো হয়েছে। আপাতত কয়েক দিন তিনি সেখানে থাকবেন। আশা করছি তিনি শিগগিরই বাড়ি ফিরতে পারবেন।’
এ টি এম শামসুজ্জামানের স্ত্রী রুনি জামান বলেন, ‘অনেক দিন পর উনাকে (এটিএম শামসুজ্জামন) কেবিনে দেয়া হয়েছে। আমরা এখন সারাক্ষণ উনার কাছাকাছি থাকতে পারছি। ভালো লাগছে। দেশবাসীর কাছে দোয়া চাই, যেন আমার স্বামী পুরোপুরি সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরতে পারেন, কাজে ফিরতে পারেন।’
শারীরিক অবস্থার উন্নতি হওয়ায় এটিএম শামসুজ্জামান বর্তমানে স্বাভাবিকভাবে বিছানা ছেড়ে উঠতে ও দাঁড়াতে পারছেন। স্বাভাবিক খাবারও খাচ্ছেন।গত ২৬ এপ্রিল থেকে তিনি আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।এদিন মলত্যাগ ও হজমজনিত সমস্যার কারণে অভিনেতা অসুস্থ হয়ে পড়লে দ্রুত তাকে এই হাসপাতালে ভর্তির করা হয়। পরের দিন তার অস্ত্রোপচার করা হয়।
অপারেশনের পর অবস্থার অবনতি হলে এমটিএম শামসুজ্জামানকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়। এরপর শারীরিক অবস্থা কিছুটা ভালো হলে গত ৩ মে তার লাইফ সাপোর্ট খুলে দেয়া হয়। দুইদিন পর আবার তার অবস্থা খারাপের দিকে যায়। পরে ৬ মে দ্বিতীয় দফায় তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়। পাঁচদিন পর ১২ মে আবারও তার লাইফ সাপোর্ট খুলে দেয়া হয়।
হজমজনিত সমস্যার পাশাপাশি নিউমোনিয়ার সমস্যা ছিল একুশে পদকপ্রাপ্ত এ অভিনেতার। এছাড়া দীর্ঘদিন তিনি বার্ধক্যজনিত নানা অসুখে ভুগছিলেন। হাসপাতালে ভর্তির পর থেকে এ পর্যন্ত দুই বার তার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ে। সেসব খবরকে গুজব বলে উড়িয়ে দেন অসুস্থ অভিনেতার পরিবার। এ ধরনের গুজব না ছড়ানোর জন্য তারা সবাইকে অনুরোধও করেন। এর আগেও একাধিকবার অভিনেতার মৃত্যুর গুজব ছড়িয়ে পড়েছিল।

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ