সর্বশেষ :

রানীনগরে ভাই-ভাবিকে গাছের সঙ্গে বেঁধে জমি দখল

নিউজবক্স ডেক্স ০১:২৬, ২২ জানুয়ারি ২০২০

নওগাঁর রানীনগরে ভাই-ভাবিকে মারধর করে গাছের সঙ্গে বেঁধে বিবদমান জমি দখল করে ঘর নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে বোনের বিরুদ্ধে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে আহতদের উদ্ধার করে। পরে আহত ভাই শহিদুল মন্ডল ও তার ভাবি জান্নাতুন নেছাকে নওগাঁ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২১ জানুয়ারি) বেলা ১১টার দিকে উপজেলার গুয়াতা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত কয়েক বছর আগে মৃত নবির উদ্দিন মন্ডলের ছোট মেয়ে সাহারা খাতুন মেওয়া বসতবাড়িসহ বেশ কিছু জায়গা-জমি বাবার কাছ থেকে দলিল করে নেন। এ নিয়ে সাহারা খাতুন মেওয়া ও তার ভাইদের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এ ঘটনায় সুষ্ঠু সমাধান করতে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিরা কয়েক দফা বৈঠক করে। কিন্তু কোনো সুরাহা না হওয়ায় সাহারা খাতুনের বড় ভাই শহিদুল ইসলাম আদালতে একটি বাটোয়ারা মামলা করেন।
হঠাৎ করেই মঙ্গলবার সকালে ছোট বোন মেওয়া খাতুন বহিরাগত ভাড়াটিয়া লোকজন নিয়ে বাড়ির জায়গা দখল করে ঘর নির্মাণের চেষ্টা করে। এ সময় বাধা দিতে গেলে ভাই শহিদুল ইসলাম ও তার দুই ভাবি আঞ্জুয়ারা, জান্নাতুন নেছাকে মারপিট করে গাছের সঙ্গে বেঁধে রেখে ঘর নির্মাণ করতে থাকে। এ সময় গোপনে স্থানীয়রা মোবাইল ফোনে ছবি ধারণ করে রাখে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাদের উদ্ধার করে। পরে তাদের নওগাঁ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
আহত শহিদুলের ছোট ভাই আবু হানিফ মন্ডল বলেন, দীর্ঘ দিন আগে তার ছোট বোন সাহারা খাতুন মেওয়া বাবার নিকট থেকে তাদের বসত বাড়িসহ বেশ কিছু জায়গা-জমি দলিল করে নেয়। এ ঘটনায় স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কয়েক দফা বৈঠক করেন। কিন্তু কোনো সমাধান না হওয়ায় ভাই শহিদুল ইসলাম আদালতে একটি বাটোয়ারা মামলা করেন। হঠাৎ করেই ছোট বোন লোকজন নিয়ে এসে ভাই-ভাবিদের মারপিট করে জমি দখলের চেষ্টা করেন।
এ ব্যাপারে অভিযুক্ত সাহারা খাতুন মেওয়া বলেন, বাবার নিকট থেকে দলিল করে নেয়ার পর থেকে তারা আমার জায়গা ছেড়ে দিচ্ছিল না। বাধ্য হয়ে স্থানীয় গণ্যমান্যদের পরামর্শে লোকজন নিয়ে ঘর করতে গিয়েছিলাম। তারা বাধা দিলে গাছের সঙ্গে বেঁধে রাখা হয়।
রানীনগর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জহুরুল হক বলেন, ভাই-বোনের মধ্যে তিন শতক জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিল। ভাইয়েরাও জানত জমিটা বোনের। জমির মালিক জমিতে ঘর ওঠাতে গিয়ে ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটে। তবে গাছে বেঁধে নির্যাতনের বিষয়টি জানা নেই। এ ঘটনায় উভয়পক্ষের নিকট থেকে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি । বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ